শুক্রবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১২:০৮ অপরাহ্ন

Notice :
Welcome To Our Website... Sonargaonkhabar.com

বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব মা হিসেবে দায়িত্ব পালনের সঙ্গে মহান মুক্তিযুদ্ধে অসামান্য অবদান রেখেছেন”… মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী

সোনারগাঁ খবর ডটকম :মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী ফজিলাতুন নেসা ইন্দিরা এমপি বলেছেন, বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব মা হিসেবে দায়িত্ব পালনের সাথে সাথে মহান মুক্তিযুদ্ধে অসামান্য অবদান রেখেছেন। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সুযোগ্য সহধর্মিণী হিসেবে বঙ্গমাতা সন্তানদের সুপ্রতিষ্ঠিত করেছেন। বঙ্গবন্ধু সংবিধানে নারীর সম অধিকার প্রতিষ্ঠিত করে গেছেন এবং বঙ্গবন্ধুই প্রথম বাংলাদেশে নারীর ক্ষমতায়ন করেন।
প্রতিমন্ত্রী ফজিলাতুন নেসা ইন্দিরা বলেন, আজকের শিশুরা আগামী দিনের ভবিষ্যত। এই শিশুরাই একদিন দেশ পরিচালনা করবে। শিশুকে ভবিষ্যতের আদর্শ সন্তান হিসেবে গড়ে তুলতে মায়েরা প্রধান ভূমিকা পালন করে বলেন শিশুর সবচেয়ে বড় সাথী হচ্ছে তার মা। একজন মা শুধু সন্তানের জন্মদাত্রী জননীই নন, তিনি শিশুর প্রথম ও প্রধান শিক্ষক।
প্রতিমন্ত্রী ইন্দিরা আরও বলেন, শিশু মায়ের গর্ভে থাকার সময় থেকেই মাতৃসত্তাকে অনুধাবন, অনুকরণ করে।
মায়ের সকল কাজ, চিন্তা-চেতনা, আবেগ-অনুভূতি, আচরণ, মূল্যবোধ শিশুর পরবর্তী জীবনে প্রভাব ফেলে। শিশুর জীবনের শিক্ষাকালীন নব্বইভাগ সময় কাটে মায়ের কাছে উল্লেখ করে বলেন, শিশুর শিক্ষার হাতেখড়ি থেকে বিশ্বের সব কিছুর প্রথম পরিচয় মায়ের কাছ থেকেই হয়। মা যত নিষ্ঠা, আন্তরিকতা ও দরদের সঙ্গে তার শিশুর পরিচর্যা ও লেখাপড়া করিয়ে থাকেন তা আর অন্য কারো পক্ষে সম্ভব নয়।
প্রতিমন্ত্রী ফজিলাতুন নেসা ইন্দিরা আজ শনিবার ৭ সেপ্টেম্বর ঢাকায় রমনায় ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন বাংলাদেশ (আইইবি) মিলনায়তনে দি ইঞ্জিনিয়ার্স-রত্নগর্ভা মা, ২০১৯ সংবর্ধনা প্রদান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।
প্রতিমন্ত্রী ফজিলাতুন নেসা ইন্দিরা রত্নগর্ভা মায়েদের অভিনন্দন জানিয়ে বলেন, উপস্থিত সকল রত্নগর্ভ মায়েদের মুখে বিজয়ের হাসি। আপনারা এক একজন সফল যোদ্ধা। অনেক কঠিন পরিশ্রম ও ত্যাগ স্বীকার করেছেন আপনাদের সন্তানদের প্রতিষ্ঠিত করতে। সমাজে সুপ্রতিষ্ঠিত হয়ে আপনাদের পরিশ্রমের মূল্য আপনাদের সন্তানেরা দিয়েছে।
প্রতিমন্ত্রী ইন্দিরা বলেন, মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয় দেশব্যাপী মা ও শিশু সহায়তা কর্মসূচি চালু করেছে। এই কর্মসূচি মা ও শিশুদের পুষ্টির চাহিদা পুরণ করে সুস্থ ও সমৃদ্ধ জাতি গঠনে ভূমিকা রাখবে।’

অনুষ্ঠানের সভাপতিত্ব করেন প্রকৌশলী মোঃ ওয়ালিউল্লাহ, চেয়ারম্যান, ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন, বাংলাদেশ, ঢাকা কেন্দ্র। এ ছাড়া বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন প্রকৌশলী মো. নুরুজ্জামান, প্রকৌশলী মনজুর মোর্শেদ। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য দেন প্রকৌশলী শাহাদাত হোসেন শিপলু। ৬০ জন রত্নগর্ভা মাকে সম্মাননা প্রদান করা হয়।

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

সর্বসত্ব সংরক্ষিত © সোনারগাঁও খবর
Design BY Codeforhost.com
themesbsongar1727434411